হাইকোর্টের নির্দেশনায় পুনর্গঠিত হলো ইবির যৌন নিপীড়ন বিরোধী সেল

ক্যাম্পাস
রবিউল আলম, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়
০৫:৪১:৩৩পিএম, ৭ এপ্রিল, ২০২৪

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে (ইবি) যৌন নিপীড়ন প্রতিরোধ কল্পে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণের লক্ষ্যে গঠিত যৌন নিপীড়ন বিরোধী সেলটি পুনর্গঠন করা হয়েছে। বাংলাদেশ সুপ্রীম কোটের হাইকোর্ট ডিভিশনের নির্দেশনা অনুযায়ী উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠানে যৌন নির্যাতন ও যৌনতা বিষয়ক হয়রানি ইত্যাদি বিষয়ে অভিযোগ দায়েরের জন্য এটি পুনর্গঠন করা হয়েছে বলে জানা যায়।

শুক্রবার (৫ এপ্রিল) বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার এইচ এইম আলী হাসান বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি জানান, কমিটিতে বাংলা বিভাগের অধ্যাপক ড. ইয়াসমীন আরা সাথীকে আহবায়ক ও উপ-রেজিস্ট্রার (প্রশাসন) মো: আলমগীর হোসেনকে সদস্য সচিব করে ১০ সদস্যবিশিষ্ট কমিটি পুনর্গঠন করা হয়।

কমিটির অন্যান্য সদস্যরা হলেন, আল-কুরআন এন্ড ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের অধ্যাপক ড. মো: আমিনুল ইসলাম, ইংরেজি বিভাগের অধ্যাপক ড. মোসাম্মদ সালমা সুলতানা, আইন বিভাগের অধ্যাপক ড. হালিমা খাতুন, প্রক্টর অধ্যাপক ড. মো: শাহাদৎ হোসেন আজাদ, ছাত্র উপদেষ্টা অধ্যাপক ড. মো: বাকিবিল্লাহ বিকুল, কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক জনাব জয়শ্রী সেন, কুষ্টিয়ার মুক্তি নারী ও শিশু উন্নয়ন সংস্থার নির্বাহী পরিচালক মমতাজ আরা বেগম এবং কুষ্টিয়ার প্রভাতী পল্লী উন্নয়ন সংস্থার পরিচালক রফিকুল ইসলাম।

কমিটির পরবর্তী কার্যক্রম সম্পর্কে জানতে চাইলে কমিটির আহ্বায়ক এবং বাংলা বিভাগের অধ্যাপক ড. ইয়াসমীন আরা সাথী বলেন, আমি সবসময় শিক্ষার্থী বান্ধব হয়ে থাকার চেষ্টা করি। কোনো শিক্ষার্থী যেনো কোনো সমস্যার সম্মুখীন না হয় সেজন্য আমরা কাজ করে যাবো। বিশ্ববিদ্যালয় আপাতত যেহেতু বন্ধ রয়েছে তাই এখনই আমাদের কার্যক্রম সম্পর্কে বিস্তারিত বলতে পারছি না। ক্যাম্পাস খুললে আমরা আমাদের কার্যক্রম শুরু করবো।